বিশ্বনাথে সন্ত্রাসী ফয়জুল ইসলাম কর্তৃক ট্রাক ছিনতাইয়ের চেষ্টার অভিযোগ

0
76

সিলেটের সংবাদ ডট কম: বিশ্বনাথের লামাকাজিতে চিহ্নিত সন্ত্রাসী কর্তৃক চালক সহ ট্রাক, মোটর সাইকেল এবং নগদ অর্থ লুটের অভিযোগ পাওয়া গেছে। এ ব্যাপারে ট্রাক মালিক এস.এম সিরাজুল ইসলাম বাদী হয়ে জালালাবাদ থানায় মামলা দায়ের করেছেন। মামলা নং ২০ তারিখ ১৭/০৭/১৪ইং। মামলা সূত্রে জানা যায়, হবিগঞ্জ জেলার বাহুবল থানার শওরাতলী গ্রামের শেখ রহমত উলৱাহর পুত্র এস.এম সিরাজুল ইসলাম এর মালিকাধীন ঢাকা- মেট্রো- ট-১৬-৭১৪৮ নম্বর ট্রাক গত ১৪ জুলাই রাতে জাফলং থেকে পাথর লোড করে সিলেটের উদ্দেশ্যে রওনা দেয়। রাত ২টা ৩০ মিটিনের সময় সিলেট-সুনামগঞ্জ সড়কের জালালাবাদ থানাধিন আউশা নামক স্থানে পৌছা মাত্র পিছন দিক থেকে একটি সাদা প্রাইভেট কার পাথর বোঝাই ট্রাককে বার বার ওভারটেক করার চেষ্টা করে। তখন ট্রাক চালক প্রাইভেট কারের ভাবভঙ্গি দেখে নিরাপদ স্থানে যাওয়ার চেষ্টা করে। এমতাবস্থায় আউশা এলাকায় পৌছামাত্রই প্রাইভেট কারটি ট্রাকের গতিরোধ করে এবং বিশ্বনাথ থানার কাজিরগাঁও গ্রামের রইছ আলীর পুত্র কার আরোহী চিহ্নিত সন্ত্রাসী ফয়জুল ইসলাম সহ ৫ জন লোক রড, লোহার পাইপ ও আগ্নোয়াশস্র নিয়ে ট্রাক চালককে জোরপূর্বক গাড়ী থেকে নামিয়ে বেধড়ক মারধর করে। এ সময় ড্রাইভার সহ ট্রাকটি সন্ত্রাসীরা বিশ্বনাথস্থ লামাকাজি রোডে নিয়ে যায়। ড্রাইভারের কথা মতো ব্যবসায়ী মঈন উদ্দিনকে দুর্ঘটনার কথা বলে সন্ত্রাসীরা মোবাইল করে উক্ত স’ানে নিয়ে আসে। এ সময় সন্ত্রাসীরা অস্ত্র ধরে মঈন উদ্দিনের সাথে থাকা মোটর সাইকেল (সিলেট- হ-১৩-৪৮৬৫), নগদ ৪২ হাজার টাকা, ড্রাইভিং সিটের নিচে রাখা ৬০ হাজার টাকা এবং তেল খরচের জন্য রৰিত ৫ হাজার টাকা ছিনিয়ে নেয়। তখন ট্রাকের শ্রমিকগণ এ ঘটনার প্রতিবাদ করলে সন্ত্রাসীরা তাদেরকেও মারধর করে। খবর পেয়ে পরিবহন শ্রমিকনেতা রহমত আলী সহ এলাকার গণ্যমান্য ব্যক্তিবর্গরা ট্রাক চালক সহ আহত শ্রমিকদের সিলেট এম.এ.জি ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসার জন্য প্রেরণ করেন। এমতাবস্থায় ট্রাক মালিক সিরাজুল ইসলাম জালালাবাদ থানায় অভিযোগ দায়ের করলে ওসি গৌছুল হোসেন সহ থানা পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে ট্রাক, চালক সহ অন্যান্যদের উদ্ধার করে। এ রিপোর্ট লেখা পর্যন্ত চিহ্নিত সন্ত্রাসী ফয়জুল ইসলাম সহ কাউকে গ্রেফতার করা সম্ভব হয়নি। তবে জালালাবাদ থানা পুলিশ জানিয়েছে আসামীদের গ্রেফতারে পুলিশী অভিযান অব্যাহত রয়েছে। এ ব্যাপারে বিশ্বনাথ থানার ওসি রফিকুল হোসেন ব্যবসায়ী মঈন উদ্দিন এর দায়ের করা সাধারণ ডায়েরীর প্রেৰিতে ঘটনাস্থল পরিদর্শন করে ঘটনার সততা নিশ্চিত করেন। এদিকে ব্যবসায়ী মঈন উদ্দিন সহ ট্রাক চালককে মারধর ও টাকা লুটপাটের ঘটনায় লামাকাজি এলাকাবাসী ফুটে উঠেছে। গতকাল ১৮ জুলাই শুক্রবার বিকেলে লামাকাজিস’ একটি কমিউনিটি সেন্টারে প্রতিবাদ সভার আয়োজন করা হয়। লামাকাজি ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান কবির হোসেন দলা মিয়ার সভাপতিত্বে ও হেলাল মেম্বার এর পরিচালনায় সভায় বক্তব্য রাখেন বিশিষ্ট মুরব্বি শিশু খান, রইছ আলী মাষ্টার, আছন মিয়া, ফটিক মিয়া, কাচা মিয়া মেম্বার, তেরাব আলী, লাল মিয়া, মনির উদ্দিন, ফয়জুর রহমান, হাজী সমর্ব মিয়া, গিয়াস উদ্দিন মেম্বার, জসিম উদ্দিন, শাহজাহান আহমদ, গোলাম হোসেন, এখলাছ মেম্বার, পলক ভট্ট, আইনুল মেম্বার, মোশাররফ মিয়া, মাশুক মেম্বার, রতন মেম্বার, যুবনেতা ফয়ছল মিয়া, এনাম মেম্বার, চমক আলী, ফার্বক মিয়া, আলাউদ্দিন, সেবুল, নাসিম, সাইফুল প্রমুখ।

(Visited 4 times, 1 visits today)

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here