জুনের মাঝামাঝি হতে পারে ডিসিসি নির্বাচন!

0
181

4 (2)সিলেটের সংবাদ ডটকম ডেস্ক: মাঠ পর্যায়ের কাজ শেষ করা, এসএসসি ও এইচএসসি পরীক্ষা শেষে এবং রোজা শুরুর পূর্বেই ডিসিসি নির্বাচন হতে পারে বলে এমন ইঙ্গিত দিয়েছে নির্বাচন কমিশন। রোববার বিকেলে নির্বাচন কমিশনে আয়োজিত এক সংবাদ সম্মেলনে এমন ইঙ্গিত দিলেন প্রধান নির্বাচন কমিশনার কাজি রকিবউদ্দিন আহমদ। প্রধান নির্বাচন কমিশনার বলেন, ১০ মার্চের মধ্যে নির্বাচনের মাঠ পর্যায়ের কাজ শেষ করা হবে। এসএসসি পরীক্ষা চলছে। এরপরে ১ এপ্রিল থেকে শুরু হবে এইচএসসি পরীক্ষা। রোজার সময়ে জরুরি না হলে নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয় না। পরীক্ষা শেষ ও রোজা শুরুর মাঝের গ্যাপে করা যেতে পারে কি না দেখা হবে। শিক্ষাবোর্ডের দেয়া সময়সূচি অনুযায়ী ১ এপ্রিল এবারের এইচএসসি ও সমমানের পরীক্ষা শুরুহবে। ১১ জুন শেষ হবে লিখিত পরীক্ষা। ইসলামিক ফাউন্ডেশনের ২০১৫ সালের বার্ষিক ক্যালেন্ডার অনুযায়ী এবারের রোজার সম্ভাব্য তারিখ ১৮ বা ১৯ জুন। নির্বাচন কমিশন যদি রোজার আগে ও পরীক্ষা শেষ হওয়ার পরে নির্বাচন করতে চায় তাহলে কমিশন সময় পাবে মাত্র ৬ থেকে ৭ দিন। তবে নির্বাচন কমিশন ডিসিসি নির্বাচন অনুষ্ঠিত হওয়ার ব্যাপারে সুনির্ষ্টভাবে কোন তারিখ বলেনি। প্রধান নির্বাচন কমিশনার বলেছেন, কমিশন বসে দিনক্ষণ ঠিক করবে। নির্বাচন নিয়ে শিক্ষা মন্ত্রী, শিক্ষা বোর্ড প্রধান এবং বিভিন্ন পর্যায়ের স্টেক হোল্ডারদের সাথে বৈঠক করা হবে। গত ২৩ ফেব্রুয়ারি প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ঢাকা উত্তর ও দক্ষিণ সিটি কর্পোরেশনের নির্বাচন আয়োজনের প্রস্তাব অনুমোদন করেন। আওয়ামী লীগের প্রার্থী হিসেবে ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশন নির্বাচনে এফবিসিসিআইয়ের সাবেক সভাপতি আনিসুল হককে এবং দক্ষিণ সিটি করপোরেশনে সাঈদ খোকনকে কাজ করার জন্য করার জন্য প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলে দিয়েছেন। প্রসঙ্গত, সর্বশেষ ঢাকা সিটি করপোরেশন নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয় ২০০২ সালে। ২০০৭ সালে মেয়াদ শেষ হওয়ার সময় তৎকালীন সেনাসমর্থিত তত্বাববধায়ক সরকার নির্বাচনের উদ্যোগ নেয়নি। তখন থেকেই ঢাকা সিটি করপোরেশন চলছে প্রশাসক দিয়ে। পরে ২০১১ সালের ২৯ নভেম্বর ঢাকা সিটি করপোরেশনকে উত্তর ও দক্ষিণ দুই ভাগে বিভক্ত করা হয় নির্বাচন দেয়ার জন্য। কিন্তু এখনও দুই করপোরেশন চলছে প্রশাসক দিয়ে।

(Visited 6 times, 1 visits today)

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here