ফেলনা বোতল দিয়ে তৈরী করুন চমৎকার টব

0
2841

4 (14)সিলেটের সংবাদ ডটকম ডেস্ক: কদিন পরপরই ঘরে কোমল পানীয় আনা হয়। হোক সেটা উৎসবে কিংবা অন্য কোন কারনে। খাওয়ার পর বোতলগুলোর জায়গা হয় ডাস্টবিনে।ব্যবহার বলতে বড়জোর পানি রাখার কাজে লাগানো হয়। অথচ একটু সময় দিলেই কিন্তু এই ফেলনা জিনিস কে কাজে লাগতে পারি আমরা। কিভাবে? চলুন দেখে নেয়া যাক:- যা যা লাগবে:- ফেলনা কোমল পানীয় এর বোতল (২/৩টি)। বোতলের ছিপি বা মুখ (২/৩ টি)। পুরোনো ঔষুধের খোসা বা পাতা (চোখ তৈরির জন্য)। ছোট্ট কালো পুতি।

সাদা কাগজ (এক পৃষ্ঠা)। পোষ্টার কালার (ইচ্ছে হলে ব্যবহার করতে পারেন)। গ্লু, কেঁচি, মাটি । যেভাবে বানাবেন:- পুরো কাজটিকে সহজ করার জন্য পুরো কাজটিকে দুই ভাগে ভাগ করে নিন। প্রথম ধাপ:- প্রথমে একটি বোতলের নীচের অংশে ১০/১২ ইঞ্চি পরিমান রেখে কেটে নেই। সাবধানে কাটবেন যেন চারপাশে সমান মাপে কাটা হয়। এবার তলানিতে মাঝ বরাবর ছোট্ট একটা ফুঁটো করে নিন। আপনি চাইলে পোষ্টার কালার দিয়ে বোতলটি কে রঙ করে ফেলতে পারেন।- এবার ঔষুধের পাতা থেকে গোল করে ৬-৮ টি গোল অংশ কেটে নিন। গোল অংশে একটি করে ছোট্ট পুতি দিয়ে দিন। তারপর, খোলা অংশে আঠা দিয়ে সাদা কাগজ লাগিয়ে নিন।

কাগজের বাড়তি অংশ কেঁচি দিয়ে কেটে ফেলুন। দ্বিতীয় ধাপ:- এই ধাপটি মূলত সংযুক্ত করার ধাপ। বোতল টি তে একে একে বোলতের ছিপি এবং তার উপরে দুইটি করে ঔষুধের পাতার গোল কেটে রাখা অংশ গ্লু দিয়ে লাগিয়ে নিন, বোতলের ছিপি নাক আর ঔষুধের পাতার গোল অংশ এক্ষেত্রে চোখের মত কাজ করবে। এবার কিছু ভালো মাটি এনে বোতলটি তে দিয়ে দিন। বোতলের উপরের দিকে ২/৩ ইঞ্চি পরিমাণ যায়গা খালি রাখুন। এবার আপনার পছন্দ মত পুদিনা, মানিপ্ল্যান্ট বা অন্য কোন গাছ লাগিয়ে ফেলুন।

ব্যাস ফেলনা বোতল কে কি সুন্দর কাজে লাগানো যায় দেখলেন তো! ঘরের কোনে বা বাথরুমে যে কোন যায়গা এই বানানো টবটি দিয়ে সাজাতে পারেন। ঘরের সৌন্দর্য্য ও যেমন বাড়বে তেমনি সুবজের ছোঁয়ায় ও মন ভরে উঠবে আপনার। ছোট্ট দুটি টিপস:- বাজারে পানি স্প্রে করার যন্ত্র পাওয়া যায়। নিয়মিত গাছে পানি দেওয়ার পাশাপাশি হালকা করে পাতায় পানি স্প্রে করবেন। এতে পাতায় ধুলো বালি জমবে না। কোন পাতা হলুদ হয়ে গেলে বা আগাছা জন্মালে তা পরিষ্কার করে ফেলুন। ফেলনা বোতল দিয়ে আরো অনেক সুন্দর সুন্দর জিনিস বানানো সম্ভব! থাক, সেসব না হয় আরেকদিন জানাবো। আপাতত, ফেলনা বোতলে টব বানিয়ে ফেলুন আর আপনার ঘরকে সাজিয়ে ফেলুন নিজের বানানো জিনিস দিয়ে।

(Visited 54 times, 1 visits today)

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here