অপার সম্ভাবনাময় পর্যটনকেন্দ্র সিলেটের লালাখাল

0
104

4শোয়েব উদ্দিন, জৈন্তাপুর (সিলেট): সিলেটের অপার সম্ভাবনাময় পর্যটনকেন্দ্র লালাখাল। প্রকৃতিপ্রেমি ও ভ্রমণ পিপাসুদের কাছে লালাখাল ধীরে ধীরে আকর্ষণীয় হয়ে উঠছে। স্বচ্ছ নীলজল আর দু’ধারের অপরুপ সৌন্দর্য,দীর্ঘ নৌপথ ভ্রমণের আনন্দ যেকোন পর্যটকের কাছে এক দূর্লভ আকর্ষণ।

মেঘালয় পাহাড়,সারিনদীর স্বচ্ছ নীলপানি, বালুবোঝাই নৌকা, চা বাগান,সুউচ্চ টিলার ওপরে সূর্যোদয় ও সূর্যাস্ত দেখার সুযোগ,বারবিকিউ আর জোৎস্না যাপনের জন্য নাজিমগড় রির্সোট্র নির্মিত ভবনের যেকোন সাইড পর্যটকদের মন ভরিয়ে দিতে পারে।

মেঘালয়ের পাদদেশে বাংলাদেশের সর্বোচ্চ বৃষ্টিপাতের স্হান এবং রাতের সৌন্দযে ভরপুর এই লালাখাল সিলেটজেলার জৈন্তাপুর উপজেলার ভারতীয় সীমান্তের পাশে অবস্তিত। সিলেট সদর থেকে ৩৫ কি:মি: দূরত্বে জৈন্তাপুরের সারিঘাট থেকে সারিনদীর নীলজলের ওপর দিয়ে নৌকা অথবা স্পীড বোটে করে লালাখাল যাওয়া যায়।

এছাড়া গাড়ি দিয়ে ও যাওয়া যায়। নদী পথে প্রায় ৪০-৪৫ মিনিট লাগবে লালাখাল চা ফ্যাক্টরিতে যেতে। প্রথম দর্শনেই সারিনদীর নীলপানি আকৃষ্ট করবে পর্যটকদের। সারিনদীর স্বচ্ছ নীলজল,একদম নিচ পর্যন্ত দেখা যায়। নৌভ্রমণে সারিনদী ও দুইধারের রূপ-সৌন্দর্য উপভোগ করার মতো। চোখে পড়বে দূরে মেঘালয়ের পাহাড়্গুলো।

সারিনদীর পানি, বালুবোঝাই নৌকা, মাঝে মাঝে মানুষের কর্মব্যস্ততা, নদীর চারপাশের মানুষের জীবনযাত্রা।বিশেষ করে নদীর বুক চিড়ে শ্রমিকদের পাথর ও বালু উত্তোলন করার দৃশ্য। বাংলাদেশের সর্বোচ্চ বৃষ্টিপাত অঞ্চল হচ্ছে লালাখাল। লালাখাল চা ফ্যাক্টরির টিক উল্টো দিকে রয়েছে সীমান্তরক্ষী বাহিনীর একটি ক্যাম্প।

বিজিবি ক্যাম্পের পাশেই রয়েছে রিভার কুইন নামের একটি চমৎকার রেষ্টুরেন্ট। এখানে দেশি বিদেশি অনেক উন্নতমানের খাবার পাওয়া যায়। বিশাল এলাকা জুড়ে রয়েছে চা বাগান। উচু নিচু ধরণের অনেক টিলা,টিলার ওপারেই রয়েছে ভারতের মেঘালয় রাজ্য। চা বাগান ছাড়া এখানে টিলাগুলোর ঊপর যেন সবুজের সমারুহ।

চা উৎপাদন প্রক্রিয়া দাখার জন্য, ফ্যাক্টরি কতৃক অনুমতি নিয়ে ফ্যাক্টরির ভিতরে ঘুরে দেখা যেতে পারে। লালাখালে থাকার জন্য পর্যটকদের জন্য রয়েছে নাজিমগড় রির্সোট, যাতে রয়েছে সব ধরণের সুযোগ সুবিধা। এবং পর্যটকদের সুবিধার জন্য সেখানে আধুনিক সুযোগ সুবিধা সম্বলিত একটি পিকনিক স্পট গড়ে তোলার কাজ শুরু করা হয়েছে। প্রাকৃতিক এই সৌন্দর্য দেখার জন্য অনেকেই আকুল হয়ে উটে, আর তাতেই এর সৌন্দর্য ও মাধুর্য্য চারদিকে ছড়িয়ে যায়।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here