সিলেটের খাদিমপাড়ার চকগ্রামে রাস্তা নিয়ে দু’পক্ষের মধ্যে মারামারি : আহত ১

1
881

সিলেটের সংবাদ ডটকম: সিলেট সদর উপজেলার ৪ নং খাদিমপাড়া ইউনিয়নের দাসপাড়া চকগ্রামে বাড়ির রাস্তা নিয়ে দু’পক্ষের মধ্যে মারামারি ঘটনা ঘটেছে। এতে ১ জন আহত হয়েছেন। আশঙ্কাজনক অবস্থায় আহত ব্যাক্তিকে সিলেট এমএজি ওসমানী হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

শনিবার বিকেল ৩ ঘটিকার সময় সিলেট সদর উপজেলার ৪ নং খাদিমপাড়া ইউনিয়নের দাসপাড়া চকগ্রামে মো: মকবুল হোসেনের ছেলে সেলিম মিয়ার বাড়িতে এ ঘটনা ঘটে। আহত ব্যাক্তির নাম সাইস্হা মিয়া। তিনি সেলিম মিয়ার বড় ভাই।স্হানীয় সুত্রে জানা যায়, সেলিম মিয়ার বাড়ি সংলগ্ন তার ব্যাক্তি মালিকানাধীন রাস্তাটি তিনি জনসাধারনের চলাচলের জন্য নিজ খরছে পাকা করে দেন। এতে শর্ত ছিল রাস্তায় কোন ধরনরে ভারি যানবাহন চলাচল করতে পারবেনা।

কিন্তু একই গ্রামের তোতা লন্ডনীর ছেলেরা ঐ রাস্তা দিয়ে ভারি যানবাহন চলাচলে অনুমতি দেন, এমনকি রাস্তাটি বিভিন্ন ভাবে নষ্ট করার পায়তারা করে আসছিল। এ নিয়ে সেলিম মিয়া কয়েকবার তাদের বাধা দিলে তোতা লন্ডনীর ছেলেরা বাধা না মেনে উল্টো সেলিম মিয়াকে বিভিন্নভাবে হুমকি দিতে তাকে।এ ঘটনায় সেলিম মিয়া খাদিমপাড়া ইউনিয়নের সাবেক চেয়ারম্যান আফরোজ, বর্তমান চেয়ারম্যান আফছর আহমদ, সাবেক মেম্বার সিরাজ, বর্তমান মেম্বার আজাদসহ স্হানীয় গনমান্য ব্যাক্তিদের বিষয়টি অবগত করেন। আজ শনিবার এ বিষয়ে স্হানীয় সালাম মিয়ার বাড়িতে বিচার চলাকালে তোতা লন্ডনীর ছেলে সোহেল, গিয়াস, সেলিম, ছেরাগ মিয়া, ফেরদৌসসহ কয়েকজন মিলে সেলিম মিয়া ও তার ভাই সাইস্হা মিয়ার উপর দেশীয় অস্ত্রশস্ত্র নিয়ে হামলা চালায়।

এতে সেলিম মিয়ার বড় ভাই সাইস্হা মিয়া গুরুতর আহত হন। তাকে উদ্ধার করে সিলেট ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। এ ব্যাপারে সেলিম মিয়ার সাথে যোগাযোগ করা হলে তিনি বিষয়টির সত্যতা স্বীকার করে বলেন, তোতা লন্ডনীর ছেলেরা এলাকায় সন্ত্রাসী কার্যক্রম চালিয়ে আমিসহ বিভিন্নজনকে কোনঠাসা করে রেখেছে।আমার মালিকাধীন রাস্তাটি তারা ক্ষতিসাধন করতে গেলে আমি বাধা দেই। আর এ জন্য তোতা লন্ডনীর ছেলেরা আমাকে বাড়িতে এসে হুমকি দিয়ে যায়। যা আমার বাড়ির সি সি ক্যামেরায় ধারন করা আছে। আজ শনিবার ঐ বিষয় নিয়ে বিচার বসলে মুরব্বীদের সামনে আমার ও আমার ভাইয়ের উপর হামলা চালায় এরা।

তিনি আরো বলেন, তোতা লন্ডনীর ছেলেরা আমার বাড়ির সীমানা প্রাচিরের নিচের মাটি কেটে নিয়ে যাচ্ছে। যার জন্য আমার সীমানা প্রাচির ভেঙ্গে পড়ার উপক্রম হয়েছে। সেলিম মিয়া জানান, তার ভাই হাসপাতালে ভর্তি রয়েছেন। হাসপাতাল থেকে ছাড়পত্র নিয়ে তারপর মামলা দায়ের করবেন।

(Visited 11 times, 1 visits today)

1 COMMENT

  1. আজ কাল মানুষ ঠাকার বিনিময় মানুষের মান সমমান মারার চেষ্টা করে চক গ্রাম এলাকার রাস্তা তুতা মিয়ার জায়গার উপর দিয়া আর আচ্ছাদর পকেট ছুরার ছেলে সাইছতা আর পকেট ছুরার দামান সেলিম / তুতা মিয়ার ছেলেরা লন্ডন আমেরিকা তে ব্যাবসা নিয়ে বেস্ত ওরা বাংলাদেশে কেউই নায় / সুহেল হলো তুতা মিয়ার কাজের মেয়ের ছেলে গিয়াস ফেরদৌস নামে তুতা মিয়ার কুনু ছেলে নাই আর তুতা মিয়া লন্ডনীর কনু ছেলে সন্ত্রাস নয় আর কুনু দিন শুনি ও নাই

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here